Best Out Reach WhatsApp marketing

WhatsApp marketing

আসসালামু ওয়ালাইকুম সবাইকে, আজকে চেষ্টা থাকবে WhatsApp marketing আপনাদের কিছু ফলো আপ মেসেজ স্ক্রিপ্ট দেবার।

আমরা সবাই কোল্ড ইমেইল সাথে মোটামুটি পরিচিত বিশেষ করে যারা Out of marketplace  বাহির থেকে ক্লাইন্ট জেনারেট করেন!

তবে সময়ের সাথে এখন মেইল করে তেমন সারা পাওয়া যায়না, বিশেষ কারন মেইল স্ক্যাম চলে যায় সিন হওয়ার ৯০% কম।

তাই হলে বলে কি মাকেটিং বন্ধ থাকবে। তার বিকল্প পদ্ধতি হল WhatsApp marketing ৯৯% মেসেজ সিন করার অন্যতম হাতিয়ার! তাবে তার পূর্বে তো আপনাকে কিছু বিষয় জানতে হবেই কারন হুট করেই কাউকে অফার করতে গেলে সে আপনাকে স্ক্যাম মনে করবেই,তার পূর্বে কিছু টিপস তো ফলো করতে হবেই।

 Out Reach WhatsApp marketing  সফল হতে পারেন যদি আপনি নিম্নলিখিত করণীয় অনুসরণ করেন ?

১) আপনার টার্গেট দর্শকের সম্পর্কে সম্পূর্ণ দৃষ্টিরে বিচার করুন। জানুন কেমন ব্যবহারকারীরা আপনার পণ্য বা পরিষেবা চান এবং তাদের প্রয়োজন কী।

২) আপনার হোয়াটসঅ্যাপ একটি কার্যকর প্রোফাইল তৈরি করুন যেখানে ব্যবহারকারীরা আপনার কাছ থেকে যোগাযোগ করতে পারবেন। এটা আপনাকে অনলাইনে প্রতিষ্ঠানের সাথে ব্যাপার চিঠি বা কথোপকথনের মাধ্যমে মিলনের সুযোগ দিবে।

৩. নিয়মিতভাবে হোয়াটসঅ্যাপ স্ট্যাটাস, ইমেজ, ভিডিও, অডিও এবং অন্যান্য সামগ্রী শেয়ার করুন। এইগুলি আপনার পণ্য বা পরিষেবার বিষয়গুলির সম্পর্কে ব্যবহারকারীদের জানার সুযোগ প্রদান করবে।

৪. ক্রেতাদের প্রশ্ন এবং সমস্যা সমাধানে সত্যিকারের ওয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ বা চ্যাটবক্স তৈরি করুন। এটি ব্যবহারকারীদের আপনার পণ্য বা পরিষেবা সম্পর্কিত প্রশ্ন এবং মতামত প্রদানে সহায়তা করবে।

৫. হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে অধিক কাস্টমার সংবাদ দিতে এবং ধারাবাহিক আপডেট সরবরাহ করতে পারেন। এইভাবে আপনি উপভোগকারীদের আপনার পণ্য বা পরিষেবা নিয়ে বিশেষভাবে আগ্রহী করতে পারবেন।

৬. হোয়াটসঅ্যাপ ব্রডকাস্ট ম্যাসেজ পরিচালনা করুন যাতে আপনার কাস্টমারদের প্রতিটি অক্ষরই বাংলা বা পরিষেবার সম্পর্কে গুরুত্ব সূচক হয়ে ওঠে। উপরে উল্লিখিত ক্রিয়াগুলো অনুসরণ করে আপনি আপনার হোয়াটসঅ্যাপ মার্কেটিং উপর দক্ষতা উন্নয়ন করতে পারেন। যাতে আপনি আপনার লক্ষ্যকে সহজেই অবহিত করতে পারেন এবং কাস্টমারগণকে আপনার প্রতিষ্ঠানের সাথে একক আর্থিক সংযোগে আবেদন করতে পারেন।

হোয়াটসঅ্যাপ মার্কেটিং সম্পর্কে কিছু প্রম্পট আইডিয়া: 

১. সংক্ষিপ্ত ভিডিওগুলি তৈরি করুন যা কাতারে আপনার প্রোডাক্টের বৈশিষ্ট্য এবং সুবিধাগুলি প্রদর্শন করে। এটা সকল উপভোগকারীকে আপনার প্রোডাক্টের উপর আকর্ষিত করতে সাহায্য করবে। হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ সম্পর্কে বিজ্ঞপ্তি পোস্ট করুন যার মাধ্যমে মার্কেটিং করলে সাধারন মানুষগুলি আপনার প্রোডাক্ট এবং সেবা সম্পর্কে আরও জানতে পারবে।

৩. বিজ্ঞাপনগুলি কনসিসটেন্ট হয়ে থাকার জন্য হোয়াটসঅ্যাপ মার্কেটিং ভ্যাটসঅ্যাপ বিজ্ঞাপন টুলবক্স ব্যবহার করুন। এটি আপনাকে বিজ্ঞাপনের ফলাফল এবং সার্ভে সম্পর্কিত সম্পূর্ণ পরিসংখ্যানসমূহ প্রদান করবে। 

৪. উপভোগকারীদের পুনঃসন্ধানকারী করতে উপযুক্ত ভার্চুয়াল প্রতিযোগীতা, পুরস্কার বা আকর্ষনীয় অফার অন্যান্য প্রমোশনাল উপায় সংগ্রহ করুন। এটি উপভোগকারীর আগ্রহ বৃদ্ধির সাথে সম্পর্কিত একটি ভাল উপায় হতে পারে। 

৫. উপভোগকারীদের আপনার পণ্য নিয়ে করা বিশ্বস্ত পরামর্শ এবং পর্যালোচনা উপর ভিত্তি করে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করুন। এটি সম্ভ্রমে উপভোগকারীদের আপনার ব্র্যান্ডের উপর বিশ্বাস ও সম্পর্ক বৃদ্ধি করতে সাহায্য করবে।

জী হ্যা ক্লায়েন্ট কে reach out করেছেন কিন্তু সে আপনাকে হয়তো ghost out করে রেখেছেন এবং কোনো রিপ্লাই দিচ্ছেন না।

– বিষয় টা স্বাভাবিক ভাবে নিবেন কেননা সেও একজন মানুষ এবং সে হয়তো ব্যস্ততার জন্যে আপনাকে সীন করতে পারেনি অথবা রিপ্লাই করেনি সীন করে।

– আবার এমন ও হতে পারে সে আপনার মেসেজ দেখেছেন কিন্তু আপনার প্রপোজাল তার পছন্দ হয়নি তাই সে আর রিপ্লাই করেনি।

ক্লায়েন্ট যদি রিপ্লাই না দেয় তাহলে ফলো আপ মেসেজ দিবেন একটা আর দেখবেন তখন দেখবেন আপনার ক্লায়েন্ট কেমন রিয়েকশন দেন। তাও যদি সে কোনো ইন্টারেস্ট না দেখান তাহলে ওইযে যেইটা সারাজীবন আপনাদের বলে আছে “নেটওয়ার্কিং” করেন তার সাথে । এটা শুধু তখন ই ব্যবহার করবেন যখন আপনার পটেনশিয়াল ক্লায়েন্ট আপনাকে রিপ্লাই করবেন না।

 তার পূর্বে কিছু টিপস  জানতে হবেই  বিপণনের উদ্দেশ্যে কেন হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করবেন?

WhatsApp marketing আধুনিক ডিজিটাল বিপণনের প্রভাবশালী মাধ্যম বিশ্বব্যাপী টেকনোলজির প্রগতিতে ধাপে ধাপে আমাদের জীবনের আরও শক্তিশালী একটি মাধ্যম যোগ হচ্ছে হোয়াটসঅ্যাপ

যেখানে প্রায় সবাই দৈনিকভারে সময় কাটিয়েছি, এটি ব্যক্তিগত চ্যাটিং এবং ব্যবসায়িক উদ্যোক্তারা দুটো বিভাগের মানুষকেই মনোনীত করে তুলেছে। 

হোয়াটসঅ্যাপ এখন মার্কেটিং যাত্রায় এগিয়ে আসে এবং উদ্যোক্তাদের ব্যবসায়ী ব্রান্ডিং এর ফলস্বরূপ সাক্ষাৎকার করে দিচ্ছে। 

এই ব্যাপারে আরও জানতে এবং WhatsApp marketing এর ভূমিকা নিয়ে কিছুটা জানতে থাকুন। হোয়াটসঅ্যাপের পেশাদারী মানসম্পন্নতা হোয়াটসঅ্যাপ নিজেস্ব টেকনোলজির পাল্টায় ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের স্থায়ীত্ব এবং বিশ্বাসযোগ্যতা বজায় রাখতে। সময়ের সাথে নিয়মিত আপডেট পেতে অথবা তথ্য আদান-প্রদানের সহজ পদ্ধতিতে আমাদের জীবনে এটি অনিন্দ্য অবদান রাখছে। 

ব্যবহারকারীদের মধ্যে নির্ভুল অভিজ্ঞতা প্রদান করে এবং নিয়মিত সুরক্ষা আবেদন করে। এটি যেকোন ওয়ার্কিং সিস্টেমে দেখা যায় এমন একটি অ্যাপ্লিকেশন, এটি আমাদের ইন্টারনেট প্রযুক্তিতে নতুন একটি পাঠ দিয়েছে। WhatsApp marketing এর জন্য উদ্যোগশীলতা মার্কেটিং ক্যাম্পেইন গঠনে সকল উদ্যোক্তা এবং উদ্যোক্ত্ব লক্ষ্য নির্ধারণের জন্য হোয়াটসঅ্যাপ অন্যতম একটি উচিত উপাদান। 

এছাড়াও কাস্টমার মনোযোগ এবং বর্তমান প্রচার প্রবর্তনে হোয়াটসঅ্যাপ সঠিক সাধারণ দূরত্ব প্রদানের জন্য একটি মাধ্যম হিসাবে কাজে লাগবে যা যন্ত্রপাতি পরিচালনা বজায় রাখে। এছাড়াও, কাস্টমার সেবা, সমস্যার সমাধান এবং আরও অন্যান্য আলোচনার লক্ষ্যে হোয়াটসঅ্যাপ গোষ্ঠীগত করে আয়োজিত হতে পারে যা ব্যবস্থাপনা গুরুত্বপূর্ণ নিয়মে সহজেই গ্রহণযোগ্য হতে পারে। 

হোয়াটসঅ্যাপ মার্কেটিং দ্বারা কর্পোরেট ব্রান্ডিং হোয়াটসঅ্যাপ মার্কেটিং পরিণতির একটি উন্নত পর্ব যা কর্পোরেট ব্র্যান্ডিং জগতে অন্যতম জরিমানা হওয়া উচিত, যেটি মূলত নতুন ব্যবসায়েরা হিসাবে জমে উঠছে। কর্পোরেট ব্র্যান্ডিং এর মাধ্যমে একটি উত্তম সুযোগ নিয়ে WhatsApp marketing এ আপনি আপনার প্রোডাক্ট এবং ব্র্যান্ডের সম্পর্কে বিশ্বাসী ও বিশ্বস্ত আপনার কাস্টমারদের বদলে দিতে পারেন। এটি নিজেকে একটি গ্লোবাল কর্পোরেশনের উত্থানের পথে মাধ্যম হিসেবে প্রদর্শন করে এবং যেখানে আপনি আপনার কাস্টমারদের একটি স্বতন্ত্র ব্র্যান্ড অভিজ্ঞতা প্রদান করতে পারেন। হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপের মাধ্যমে সামাজিক ব্র্যান্ডিং হোয়াটসঅ্যাপে গ্রুপ এই দিনগুলি বিশেষত সামাজিক ব্র্যান্ডিং কাজে লাগে। 

এই গ্রুপ ব্যাপারিক কর্মকৌশল থেকে শিল্পবাণিজ্যে গড়ে এড়াতে পারে এবং একেকজন সদস্যদের কাল্পনিক বৃত্তপত্র পাঠানোর মাধ্যমে আপনার কাস্টমারদের নিয়মিত আপডেট সরবরাহ করতে পারে। সাথেই থাকে হোয়াটসঅ্যাপে গ্রুপের মাধ্যমে উদ্যোক্তারা প্রত্যাহার পেতে পারেন প্রশ্নের উত্তর সঞ্চালন করার পর, তাদের পরবর্তী চাকরি পেতে পারেন কাস্টমারের উদ্বোধনের জন্য। লক্ষ্য তুলে ধরলে, সামাজিক যত্ন দিয়ে এটি কাজ করছে, তা আপনার কন্টেন্ট মার্কেটিং স্ট্রাটেজি এর জন্য এক্সালেন্ট এর বিপণন হয়ে ওঠবে। সর্বপ্রথম আপনি হোয়াটসঅ্যাপে ব্র্যান্ডসেট তৈরি করতে হবে; নিজের উদ্যোক্তা এবং নিজেকে সম্পর্কিত জনগুলির সাথে গভীর যোগাযোগের অপরিহার্যতা সুনিশ্চিত করতে হবে। সম্ভবত, একটি সামাজিক ব্র্যান্ডিং গ্রুপ তৈরি করার জন্য সর্বপ্রথম কোন আবেদনপত্রের জন্য হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করা প্রয়োজন হবে, যার মাধ্যমে আপনি প্রোডাক্ট পোস্ট করতে পারেন। এগুলি কর্তৃপক্ষ দ্বারা পাঠিয়ে দিয়া হলে অপ্রয়োজনীয় উদ্ভূণতা থেকে বিরত থাকে। 

হোয়াটসঅ্যাপ মার্কেটিং এর উপযোগিতা WhatsApp marketing জনপ্রিয়তার আলোকে এই অ্যাপটি খুবই গুরত্বপূর্ণ উপযোগিতাসমূহ প্রদান করতে পারে। মাউস চালিয়ে বা কীবোর্ডের মাধ্যমে ইমেল পাঠাতে হবে না, এই সরল মাধ্যমে আপনি অর্ডার নিতে পারেন এবং পেমেন্ট সম্পন্ন করতে পারেন। সেটা নয়, কর্পোরেট ব্র্যান্ডিং টীম আপনার পোস্টগুলি ।

 

ইনশাআল্লাহ বাকি টিপস ধারাবাহিক ভাবে আলোচনা করবো!

2 Responses

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *